ঠিক যে কারণে রোগীরা ডাক্তারদের মিথ্যে কথা বলেন

আমরা প্রায় সবাই কম-বেশি মিথ্যে কথা বলে থাকি ডাক্তারের চেম্বারে গিয়ে। যেমন ডাক্তারবাবু যদি জিজ্ঞাসা করেন, এই ওষুধ কি নিয়মিত খেয়েছেন বা যে খাবার থেকে নিষেধ করেছিলেন তা মেনেছেন কি না, তা হলেই অনেকে ঘাবড়ে যান। নিয়ম মেনে না চলে থাকলে মিথ্যে বলাই শ্রেয় মনে করেন রোগী।

Image result for ডাক্তার

ইউনিভার্সিটি অফ উটাহ হেলথ ও মিডিলসেক্স কমিউনিটি কলেজের গবেষণায় উঠে এসেছে যে ঠিক কোন কারণে এরকম মিথ্যে কথা বলেন রোগীরা।

০১) ডাক্তারের চিকিৎসা পদ্ধতির সঙ্গে একমত হতে না পারলেই চিকিৎসকে মিথ্যে বলার প্রবণতা তৈরি হয় রোগীর মধ্যে।

০২)  অনেকে আবার ডাক্তারের দেওয়া নির্দেশ বুঝতে না পারলেও, পাছে ডাক্তারবাবু রেগে যান তাই সেই বিষয়ে বেশি জিজ্ঞসাও করতে চান না। তখন ডাক্তারের কাছে মিথ্যে বলে বিষয়টি পাশ কাটিয়ে চলে যান।

০৩) উনি কী ভাববেন, এই ভয়েতেই অনেকে আবার ডাক্তারের কাছে গিয়ে সত্যি কথা চেপে যান। কারণ তার পরে যদি ডাক্তারবাবু রোগীর বদভ্যাস বদলানোর জন্য লেকচার দেন! এই আশঙ্কাই তাড়া করে রোগীকে।

তবে একই গবেষণায় দাবি করা হয়েছে এই মিথ্যে কথা বলার কারণেই অনেক সময়ে ভুল চিকিৎসার শিকার হন রোগীরা। কারণ ডাক্তারের নির্দেশ মতো খাবার বা ওষুধ না খেয়ে এবং মিথ্যে কথা বলে ডাক্তারকে বিভ্রান্ত করার ফলে অনেক সময়েই ঠিক মতো চিকিৎসা হয় না রোগীর।

 

সূত্রঃএবেলা

Spread the love
  • 5
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    5
    Shares

আপনার মন্তব্য লিখুন