ভারতে হিন্দুত্ববাদীদের তোপের মুখে নাসিরউদ্দিন শাহ

ভারতে হিন্দুত্ববাদী কয়েকটি সংগঠনের বিক্ষোভের জেরে রাজস্থানের আজমির শহরে বাতিল করে দেওয়া হয়েছে অভিনেতা নাসিরুদ্দিন শাহের অনুষ্ঠান। সাহিত্য উত্সবে শুক্রবারই মূল ভাষণ দেওয়ার কথা ছিল নাসিরউদ্দিনের।

সম্প্রতি উত্তর প্রদেশের বুলন্দশহরে গো-হত্যাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ ছড়ালে এক পুলিশ অফিসার নিহত হন। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী তারপরেও কর্মকর্তাদের একটি বৈঠকে বেশি গুরুত্ব দিয়েছিলেন- কীভাবে গো-হত্যা হল, সেই বিষয়ে তদন্তের জন্য। আর পুলিশ অফিসারের মৃত্যুকে তিনি বলেছিলেন, ‘দুর্ঘটনা’।

এক সাক্ষাতকারে নাসিরউদ্দিন বলেছিলেন, ভারতে একজন পুলিশ অফিসারের মৃত্যুর থেকেও বেশি গুরুত্ব পাচ্ছে গরুর মারা যাওয়ার ঘটনা। তারপর থেকেই দক্ষিণপন্থী এবং হিন্দুত্ববাদী সংগঠনগুলো তার ব্যাপক সমালোচনা শুরু করে। শুক্রবারও আজমির সাহিত্য উত্সব চত্বরে হিন্দুত্ববাদী ভারতীয় জনতা যুব মোর্চাসহ বেশ কয়েকটি সংগঠনের সদস্যরা তার বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করে। উত্সবের কর্মকর্তা সোমরতন আরিয়া জানিয়েছেন, হাঙ্গামার পরে আমরা ঝুঁকি না নিয়ে তার অনুষ্ঠানটা বাতিল করে দিয়েছি।

Image result for নাসিরউদ্দিন শাহ

সাংবদিকদের নাসির বলেন, আমি একজন দুশিন্তাগ্রস্ত ভারতীয় হিসাবেই ওই মন্তব্যগুলো করেছিলাম। এসব কথা তো আগেও বলেছি। এবার নতুন কী বলেছি যার জন্য আমাকে বিশ্বাসঘাতক বলা হচ্ছে?

তিনি আরও বলেন, সমালোচনা শুনতে আমি রাজি। তারা যদি আমার সমালোচনা করার অধিকার রাখে, আমারও সেই একই অধিকার রয়েছে। আমি যে দেশটাকে ভালবাসি, যে দেশে আমি থাকি, তার জন্য উদ্বেগ থেকেই ওই কথাগুলো বলা। এটা কি অপরাধ?

নাসিরুদ্দিন শাহ বলেন, আমি আর আমার স্ত্রী দুজন দুই ধর্মের থেকে এসেছিলাম। কিন্তু আমাদের সন্তানদের কোনও ধর্মই পালন করাইনি আমরা।

কিন্তু এখন চিন্তা হয়, কাল যদি একদল মানুষ আমার সন্তানদের ঘিরে ধরে জানতে চায় যে ওরা হিন্দু না মুসলমান, তাহলে তো তারা কোনও জবাব দিতে পারবে না।

এই পরিস্থিতিটার কোনও উন্নতি খুব তাড়াতাড়ি হবে বলে মনে হয় না। একবার যে জ্বিন বোতল থেকে বেরিয়ে গেছে, তাকে আবার বোতলে ফেরত পাঠানো কঠিন।

Spread the love
  • 3
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    3
    Shares

আপনার মন্তব্য লিখুন